Header Ads

মাদক খাইয়ে রোগীর আত্মীয়ের সর্বস্ব লুট মালদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে




মালদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল চত্বরে রোগীর আত্মীয়দের মাদক খাইয়ে সর্বস্ব লুট করলো দুষ্কৃতীরা।লুটের কবলে পড়েছেন রতুয়া ও মোথাবাড়ি এলাকার দুই রোগীর আত্মীয়।দুই জনের কাছ থেকে নগদ কয়েক হাজার টাকা ও মোবাইল ফোন খোওয়া যায়।সোমবার সকালে লুটের ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসতেই চাঞ্চল্য ছড়াই হাসপাতাল চত্বরে।


জানা গিয়েছে,রতুয়া থানার বানিকান্তটোলার বাসিন্দা বাবলু চৌধুরীর ছেলে অসুস্থ অবস্থায় মালদা মেডিক্যাল কলেজে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।স্ত্রী ও ছেলে ওয়ার্ডে থাকায় তিনি বাইরে হাসপাতাল চত্বরে রাত কাটাচ্ছিলেন। সেই সময়ই আরো কয়েকজন রুগীর আত্মীয়দের সঙ্গে বন্ধুত্ব হয়।তাদের  খাবার খেয়ে হাসপাতাল চত্বরে ঘুমিয়েই কার্যতঃ বেহুশ হযে যান বাবলু বাবু।খাওয়ারে মাদক মিশিয়ে খাওয়ানো হয় বলে অনুমান।এরপর  সকালে জ্ঞান ফিরলে দেখেন সঙ্গে থাকা নগদ দশ হাজার টাকা খোয়া গেছে।


অন্যদিকে মোথাবাড়ি থানার পাগলাঘাটের বাসিন্দা সন্তোষ লেটের স্ত্রী রবিবার মালদা মেডিক্যাল কলেজে নবজাতকের জন্ম দেন।তাই হাসপাতাল চত্বরে রাত কাটাছিলেন তিনি।অচেনা লোকজনের সঙ্গে খাবার খাওয়ার পর লুটের স্বীকার হন তিনিও। তাঁর সঙ্গে থাকা নগদ টাকা ও মোবাইল ফোন লুট করে দুস্কৃতিরা।


আক্রান্তদের অনুমান, রবিবার রাতে অচেনা কয়েকজন নিজেদের রোগীর আত্মীয়ের পরিচয় দিয়ে দুই রোগীর আত্মীয় সঙ্গে বন্ধুত্ব করে।এরপর খাবার খাইয়ে অচৈতন্য করে দেওয়া হয়।আজ সকালে জ্ঞান ফিরলে তাঁরা দেখেন সঙ্গে থাকা নগদ টাকা ও মোবাইল ফোন উধাও।এরপরই চাঞ্চল্য ছড়াই হাসপাতাল চত্বরে।

No comments