Header Ads

Kashmiris ready to face bullets in order to protect dignity ! 'বিশেষ মর্যাদা রক্ষার্থে বুলেটের মুখোমুখি হতেও প্রস্তুত কাশ্মীরিরা'

জম্মু-কাশ্মীর থেকে সংবিধানের ৩৫-এ ধারা বাতিলের চেষ্টার প্রতিবাদে আগামী ২৯ আগস্ট বনধের ডাক দিলেন কাশ্মিরি নেতারা। ৩৫-এ ধারা অনুসারে রাজ্যটি বিশেষ মর্যাদা ও সুবিধা ভোগ করে।
যৌথ প্রতিরোধ নেতৃত্ব সাইয়্যেদ আলী শাহ গিলানি, মীরওয়াইজ ওমর ফারুক এবং মুহাম্মদ ইয়াসীন মালিকের পক্ষ থেকে ওই বনধের ডাক দেয়া হয়েছে।  
তারা বলেছেন, এটা তাদের জীবন ও মৃত্যুর ব্যাপার এবং এটি রক্ষার জন্য প্রয়োজনে তারা রক্ত ঝরাবেন।
৩৫-এ ধারা ইস্যুতে আগামী ২৯ আগস্ট সুপ্রিম কোর্টে শুনানি অনুষ্ঠিত হবে। তার আগে প্রতিরোধ আন্দোলন নেতৃত্বের পক্ষ থেকে এ ব্যাপারে আগামীকাল (শুক্রবার) থেকে ৫ দিনের প্রতিবাদ আন্দোলন কর্মসূচি হাতে নেয়া হয়েছে।
শুক্রবার কাশ্মীর 'বার এসোসিয়েশন'-এর পক্ষ থেকে শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ বিক্ষোভ অনুষ্ঠিত হবে। একইদিনে 'জেলা বার এসোসিয়েশন-এর পক্ষ থেকে গুরুত্বপূর্ণ স্থানে প্রতিবাদ জানানো হবে।  
শনিবার সমস্ত সুশীল সমাজ, ব্যবসায়ী সংগঠন, ধর্মীয় ও সামাজিক সংস্থার পক্ষ থেকে শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ বিক্ষোভ হবে।
একইভাবে রোববার ও সোমবারও বিভিন্ন কর্মসূচির কথা ঘোষণা করা হয়েছে।
মঙ্গলবার আদালতের পক্ষ থেকে শুনানি অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকায় ওইদিন সম্পূর্ণ বনধ পালিত হবে।
যৌথ প্রতিরোধ নেতৃত্বের পক্ষ থেকে হুঁশিয়ারিতে বলা হয়েছে, আদালত যদি ওই ইস্যুতে কোনো প্রতিকুল আদেশ দেয় তাহলে সেই মুহূর্ত থেকে সর্বাত্মক আন্দোলন শুরু হবে। একটি জীবন্ত জাতি হিসেবে কাশ্মিরিরা জানে যে, তাদের মর্যাদা কীভাবে রক্ষা করতে হয়। এ ব্যাপারে তারা সরকারের সমস্ত প্রচেষ্টা প্রতিরোধ করারও অঙ্গীকার ব্যক্ত করেছেন তারা।   

কাশ্মিরি নেতারা
এদিকে, আজ ৩৫-এ ধারা ইস্যুতে কাশ্মীর ট্রেডার্স ম্যানুফ্যাকচারার্স ফেডারেশন (কেটিএমএফ) এবং কাশ্মীর ইকনোমিক অ্যালায়েন্সের পক্ষ থেকে প্রস্তাবিত বনধকে সমর্থন করা হয়েছে।
কেটিএমএফ-এর প্রেসিডেন্ট মুহাম্মদ ইয়াসিন খান বলেছেন, তারা জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা রক্ষার্থে বুলেটের মুখোমুখি হতেও প্রস্তুত। তিনি বলেন, কেন্দ্রীয় সরকার যদি ৩৫-এ ধারা বিলোপ করে তাহলে সর্বাত্মক লড়াই হবে। এটা তাদের জন্য জীবন ও মৃত্যুর বিষয় বলেও ইয়াসিন খান মন্তব্য করেন।
মুহাম্মদ ইয়াসিন খান কাশ্মির ইকনোমিক অ্যালায়েন্সেরও চেয়ারম্যান। তিনি রাজ্যের বিশেষ মর্যাদা রক্ষার্থে ব্যবসায়ী সম্প্রদায়ের মানুষজন জীবন উৎসর্গ করতে প্রস্তুত রয়েছেন বলে মন্তব্য করেন।   

কাশ্মিরের মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি

৩৫-এ ধারা অনুসারে জম্মু-কাশ্মীর সরকার ঠিক করে, কারা সেখানকার স্থায়ী নাগরিক। তারা বাড়তি সুবিধা পান। ভিন রাজ্যের নাগরিকদের এ রাজ্যে জমি কিনে বসবাসের অধিকার নেই। ১৯৫৬ সালে জম্মু-কাশ্মীরের যে সংবিধান গৃহীত হয়েছিল, সেই সংবিধানে জম্মু-কাশ্মীরের স্থায়ী বাসিন্দা হিসেবে বিবেচিত হতে হলে কী কী শর্ত তার উল্লেখ রয়েছে। ৩৫-এ ধারা অনুসারে জম্মু-কাশ্মীরের জন্য ওই বিশেষ ব্যবস্থা স্বীকৃতি পেয়েছে।  
২০১৪ সালে একটি বেসরকারি সংস্থা জম্মু-কাশ্মির থেকে ৩৫-এ ধারা তুলে দেয়ার আবেদন জানিয়ে সুপ্রিম কোর্টে আবেদন জানায়। জম্মু-কাশ্মীর সরকার পাল্টা হলফনামা জমা দিয়ে ওই আবেদন খারিজ করার দাবি জানালেও কেন্দ্রীয় সরকার কোনো পক্ষ নেয়নি। বরং গত মাসে ভারতের অ্যাটর্নি জেনারেল কে কে বেণুগোপাল বিষয়টি নিয়ে বিতর্ক হওয়া উচিত বলে সুপ্রিম কোর্টে বলেন। ওই ইস্যুতে রাজ্যটিতে তীব্র বিতর্ক সৃষ্টি হয়েছে।
৩৫-এ ধারা বাতিল করলে কাশ্মীরে ভারতের জাতীয় পতাকা ধরার কেউ থাকবে না বলে সম্প্রতি মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি মন্তব্য করেছেন।
বিজেপি মুখপাত্র সুনীল শেঠি অবশ্য বলেছেন, সংবিধানের ৩৫-এ ধারা নিয়ে মেহবুবা যে মন্তব্য করেছেন, সেটা ঠিক নয়। তিনি রাজনৈতিকভাবে ভুল মন্তব্য করেছেন। ওই ধারার ফলে উপত্যকায় বৈষম্য তৈরি হয়েছে।



Kashmiri leaders called for Bandh on August 29 in protest against the attempt to abrogate Article 35 of the Constitution from Jammu and Kashmir. As per Article 35, the state enjoys special status and privileges.Joint defense leader Sayyed Ali Shah Geelani, Mirwaiz Umar Farooq and Muhammad Yasin Malik have been called on the bandh.They said that this is the matter of their life and death and they need to be bleeding for protection.The Supreme Court hearing will be held on August 29 in the issue of Article 35. Earlier, the protest movement led by the leadership has taken a five-day protest movement program from tomorrow (Friday).Peaceful protests will be held on Friday by the Kashmir Times 'Bar Association'. On the same day, the district bar association will protest at important places.Peaceful protests will be held on Saturday from all civil society, business organizations, religious and social organizations.Similarly, on Sunday and Monday several programs have been announced.The hearing will be held on Tuesday, due to the court's decision.The Joint Resistance has warned on behalf of the leadership that if the court issues any unfavorable order on that issue, then the all-round movement will start from that moment. As a living nation, Kashmiris know how to protect their dignity. They have also pledged to prevent all the government efforts in this regard.Meanwhile, in today's Article 35, the Kashmir Traders Manufacturing Federation (KTMF) and Kashmir Economic Alliance have supported the proposed ban.KTMF President Muhammad Yasin Khan said that they are ready to face bullets in order to protect the special status of Jammu and Kashmir. He said, if the central government abolished the Article 35, then the entire fight would be. Yasin Khan commented on this as a matter of life and death for them.Muhammad Yasin Khan is also Chairman of the Economic Alliance of Kashmir. He said that the people of the business community are ready to dedicate their life to the special status of the state.According to Article 35, the Jammu and Kashmir government decides who are permanent residents. They get extra benefits. The citizens of VIN states have no right to buy land in this state. What conditions are mentioned in the Constitution of Jammu and Kashmir which were adopted in 1956 to be considered as permanent resident of Jammu and Kashmir? According to Article 35, the special provision for Jammu and Kashmir has been recognized.In 2014, a non-governmental organization appealed to the Supreme Court, seeking an extension of Article 35 from Jammu and Kashmir. The Jammu and Kashmir government has demanded that the petition be rejected by submitting counter-affidavit, but the central government did not take any side. Rather, the Supreme Court said last month that the matter should be debated about the matter of Attorney General of India KK Binugopal. There has been a strong debate in the state on this issue.Chief Minister Mehbuba Mufti has recently commented that if the cancellation of Article 35, there will be no one to hold Indian National Flag in Kashmir.BJP spokesperson Sunil Shetty said that Mehbooba's comments on Article 35 of the Constitution are not correct. He made a wrong comment politically. Due to this trend the discrimination in the Valley has been created.

No comments